ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৮ই জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ৪ঠা মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৪ই জমাদিউস সানি, ১৪৪৩ হিজরি, সকাল ৭:৫৪
বাংলা বাংলা English English

মঙ্গলবার, ১৮ই জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ৪ঠা মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

তাহলে কবে মাঠে ফিরছেন মেসি?


একদিকে বেশ অনেকদিন ধরেই মাঠের বাইরে পিএসজির ব্রাজিলিয়ান তারকা নেইমার। অপরদিকে করোনার ধকল থেকে এখনও সেরে উঠেননি লিওনেল মেসি। এই দুই মহাতারকা না থাকার ফল মাঠে ভোগ করছে পিএসজি। শেষ পাঁচ ম্যাচে মাত্র একটিতে জয়ের মুখ দেখেছে তারা। তবে মেসি জানান মাঠে ফিরতে তর সইছে না তার। সেজন্য অনুশীলনে ঘামও ঝরাচ্ছেন তিনি।

করোনা থেকে মুক্ত হয়ে মেসির লড়াইটা এখন ফিটনেসের সাথে। তবে মেসি আশা করছেন মৌসুমের দ্বিতীয় ভাগে আরও বেশি গোলের দেখা পাবেন সাতবারের ব্যালেন ডি’অর জয়ী। সেটা হলে তার দল পিএসজিও লিগ পুনরুদ্ধারের মিশনে এগিয়ে যাবে বহুদূর।

মেসি তার ইনস্টাগ্রামে এক পোস্টে লিখেছেন, ‘শুভ অপরাহ্ন! আপনারা জানেন আমার কোভিড হয়েছিল। আর আপনারা আমাকে এত খুদেবার্তা পাঠিয়েছেন, সেজন্য আমি আপনাদের ধন্যবাদ জানাতে চেয়েছিলাম। এটাও বলতে চেয়েছিলাম যে, প্রত্যাশার চেয়ে বেশি সময় লেগেছে কোভিড থেকে সেরে উঠতে।’

তবে করোনা থেকে ফিরতে বেশ সময় লাগিয়ে ফেলছেন মেসি। আর পোস্টের শেষ ভাগে তাই লিখেছেন মেসি। মেসি লিখেছেন, ‘আমি প্রায় সেরেই উঠেছি। শতভাগ সুস্থ হওয়ার চেষ্টা করছি। আর এখন মাঠে ফেরার জন্য আর তর সইছে না আমার।’

ধারণা করা হচ্ছে, বড়দিনের ছুটিতে করোনায় আক্রান্ত হয়েছিলেন মেসি। বিশেষ করে একটা ডিজে পার্টির দিকে আঙুল উঠিয়েছে অনেকে। যেখান থেকে ফিরে আরও অনেকে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। তবে সেই পার্টির ডিজে অবশ্য এমন অভিযোগ অস্বীকার করেছেন।

এদিকে আর্জেন্টিনার সমর্থকদের জন্য মেসির এই করোনা হতাশার কারণ হয়ে দাঁড়াতে পারে। কারণ পিএসজি ও আর্জেন্টাইন ফুটবল ফেডারেশন এর মধ্যে বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের আগামী দুই ম্যাচে মেসিকে না পাঠানোর ব্যাপারে একমত হয়েছে। কিন্তু আর্জেন্টিনার হয়ে মাঠে না নামলেও, পিএসজির হয়ে শিগগিরি মাঠে দেখা যাবে মেসিকে, এমনটাই জানিয়েছে ফ্রান্সের সংবাদ মাধ্যম।