ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৮ই জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ৪ঠা মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৪ই জমাদিউস সানি, ১৪৪৩ হিজরি, সকাল ৮:০৮
বাংলা বাংলা English English

মঙ্গলবার, ১৮ই জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ৪ঠা মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

বিশ্বে ২৪ ঘণ্টায় করোনা শনাক্তের রেকর্ড


মহামারি করোনাভাইরাসের তাণ্ডবে দিশেহারা বিশ্ববাসী। নতুন ধরন ওমিক্রন চোখ রাঙাচ্ছে দেশে দেশে। নতুন এ ধরনের ভয়াবহতা ইতোমধ্যে দ্রুতগতিতে ছড়িয়ে পড়েছে। কয়েকদিন আগেও বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ নিম্নমুখী ছিল। কিন্তু ওমিক্রন বিশ্বজুড়ে স্বাস্থ্যব্যবস্থাকে মহাচাপের মুখে ফেলেছে।

গত ২৪ ঘণ্টায় আগের সব রেকর্ড ভেঙে বিশ্বে আবারও সর্বোচ্চ সংখ্যক মানুষের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে। তবে মৃত্যু কিছুটা কমেছে।

করোনা সংক্রমণ ও মৃত্যুর পরিসংখ্যান রাখা ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডওমিটারসের তথ্যানুযায়ী, বাংলাদেশ সময় শুক্রবার(১৪ জানুয়ারি) সকাল সাড়ে ৮টা পর্যন্ত পূর্ববর্তী ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বে মারা গেছেন আরও ৭ হাজার ২৯৯ জন। অন্যদিকে ২৪ ঘণ্টায় করোনা শনাক্ত হয়েছেন ৩১ লাখ ৭৫ হাজার ৫৪৮ জন, যা করোনার ইতিহাসে সর্বোচ্চ।

এর একদিন আগে বৃহস্পতিবার (১৩ জানুয়ারি) সকাল সাড়ে ৮টা পর্যন্ত পূর্ববর্তী ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বে মারা যান আরও ৮ হাজার ৩২ জন। অন্যদিকে ২৪ ঘণ্টায় করোনা শনাক্ত হয়েছেন ৩১ লাখ ৪২ হাজার ৪৮০ জন, যা করোনার ইতিহাসে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ।

এর আগে বুধবার (১২ জানুয়ারি) সকাল সাড়ে ৮টা পর্যন্ত পূর্ববর্তী ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বে মারা গিয়েছিল ৭ হাজার ৮৪৭ জন। অন্যদিকে ২৪ ঘণ্টায় করোনা শনাক্ত হয়েছিল ২৭ লাখ ৭২ হাজার ৬৮ জন।

চলতি বছরের ৭ জানুয়ারি একদিনে রেকর্ড সংখ্যক ২৮ লাখ ৮ হাজারেরও বেশি মানুষের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছিল। সে হিসেবে ১২ জানুয়ারি ছিল শনাক্তের দিক থেকে তৃতীয় সর্বোচ্চ। আজ ১৪ জানুয়ারি করোনার সব রেকর্ড ছাড়িয়ে গেল।

বিশ্বে এখন পর্যন্ত করোনায় মোট আক্রান্ত হয়েছেন ৩২ কোটি ৮৫ লাখ ৫৬ হাজার ৮১১ জন এবং মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৫৫ লাখ ৩৮ হাজার ৭৬৬ জনে। আর সুস্থ হয়েছেন ২৬ কোটি ৪০ লাখ ১৪ হাজার ৫৫৭ জন।

এদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বজুড়ে সবচেয়ে বেশি সংক্রমণ ও প্রাণহানির ঘটনা ঘটেছে যুক্তরাষ্ট্রে। নতুন করে দেশটিতে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৮ লাখ ৬ হাজার ৪৯৩ জন এবং মারা গেছেন ১ হাজার ৯৬৯ জন।

এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি সংক্রমণ ও মৃত্যু হয়েছে বিশ্বের শীর্ষ ক্ষমতাধর এ দেশটিতে। তালিকায় শীর্ষে থাকা দেশটিতে মোট শনাক্তের সংখ্যা দাঁড়াল ৬ কোটি ৫২ লাখ ৩৬ হাজার ৬৯৪ জন। মোট মৃত্যু হয়েছে ৮ লাখ ৬৯ হাজার ২১২ জনের।

আক্রান্তে দ্বিতীয় এবং মৃত্যুতে তৃতীয় অবস্থানে থাকা ভারতে এখন পর্যন্ত করোনায় ৩ কোটি ৬৫ লাখ ৭১ হাজার ৪২৩ জন সংক্রমিত হয়েছেন। মৃত্যু হয়েছে ৪ লাখ ৮৫ হাজার ৪৩ জনের।
আক্রান্তে তৃতীয় ও মৃত্যুতে দ্বিতীয় অবস্থানে থাকা ব্রাজিলে এখন পর্যন্ত মোট সংক্রমিত হয়েছেন ২ কোটি ২৮ লাখ ১৫ হাজার ৮২৭ জন এবং এখন পর্যন্ত মোট মৃত্যু হয়েছে ৬ লাখ ২০ হাজার ৬০৯ জনের।
আক্রান্তের দিক থেকে চতুর্থ স্থানে থাকা যুক্তরাজ্যে এখন পর্যন্ত করোনা সংক্রমিত হয়েছেন ১ কোটি ৪৯ লাখ ৬৭ হাজার ৮১৭ জন। এর মধ্যে মারা গেছেন ১ লাখ ৫১ হাজার ৩৪২ জন।
পঞ্চম স্থানে থাকা ফ্রান্সে এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ১ কোটি ৩২ লাখ ৪০ হাজার ৩০৪ জন। মারা গেছেন ১ লাখ ২৬ হাজার ৫৩০ জন।
আক্রান্তের তালিকায় রাশিয়া ষষ্ঠ, তুরস্ক সপ্তম, ইতালি অষ্টম, স্পেন নবম এবং জার্মানি দশম অবস্থানে রয়েছে। এ তালিকায় বাংলাদেশে অবস্থান দাঁড়িয়েছে ৩৬তম।
২০১৯ সালের ডিসেম্বরের শেষ সপ্তাহে চীনের হুবেই প্রদেশের উহান থেকে করোনাভাইরাস সংক্রমণ শুরু হয়। এখন পর্যন্ত বাংলাদেশসহ বিশ্বের ২২৪টি দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়েছে কোভিড-১৯।