ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৮ই জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ৪ঠা মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৪ই জমাদিউস সানি, ১৪৪৩ হিজরি, সকাল ৮:১১
বাংলা বাংলা English English

মঙ্গলবার, ১৮ই জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ৪ঠা মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

ব্যক্তিগত তথ্য চুরি করছে গুগল, ফেসবুক


বিপদ যেন কাটছেই না সুন্দর পিচাইয়ের গুগল আর মার্ক জাকারবার্গের ফেসবুকের। সম্প্রতি আবারও বড় ধরনের সমস্যায় পড়েছে এই দুই টেক জায়ান্ট। কুকিস ( Cookies) সংক্রান্ত জটিলতার কারণে বিশাল অঙ্কের জরিমানা করেছে ফ্রান্সের রেগুলেটরি অথোরিটির। অর্থদন্ডের পরিমাণ প্রায় ২১০ মিলিয়ন ইউরো বা ২৩৭ মিলিয়ন মার্কিন ডলার।

ইন্টারনেট ব্যবহারকারীরা কম্পিউটার বা মুঠোফোন থেকে কোনো ওয়েবসাইটে ঢুকলে এ-সংক্রান্ত কুকিস ওয়েব ব্রাউজারে সংরক্ষিত হয়ে থাকে, যা গুগল ও ফেসবুকের কাছে বেশ মূল্যবান। কারণ, ব্যবহারকারীদের এসব তথ্যের ভিত্তিতেই বিজ্ঞাপন দিয়ে বিশাল অঙ্কের মুনাফা হয় তাদের। তবে এর মধ্য দিয়ে ব্যবহারকারীদের অনেক ব্যক্তিগত তথ্য ফাঁস হওয়ার ঝুঁকি থাকে।

মূলত ইন্টারনেট ব্যবহারকারীদের নানা তথ্যের ওপর নজর রাখতেই কুকিস ব্যবহার করা হয়। ফ্রান্সের রেগুলেটরি অথোরিটির দাবি, দেশটিতে ফেসবুক, গুগল ও ইউটিউব ব্যবহারকারীদের কুকিসের ব্যবহার এড়িয়ে যাওয়ার কোনো সুযোগ নেই। তাই না চাইতেই ব্যবহারকারীর ব্যক্তিগত তথ্য চলে যাচ্ছে প্রতিষ্ঠানগুলোর কাছে। আর এ কারণেই জরিমানা করা হয়েছে তাদের।

২০১৮ সালে ইউরোপিয়ান ইউনিয়নের তথ্য গোপনীয়তা নীতিমালায় কুকিস ব্যবহারের ক্ষেত্রে ব্যবহারকারীর অনুমতি নেওয়ার উপর বিশেষ গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে। অর্থাৎ যে কেউ চাইলে কুকি ব্যবহার প্রত্যাখ্যান করতে পারেন। এক্ষেত্রে কুকি প্রত্যাখ্যান করার প্রক্রিয়া সহজ করতে বলেছে পর্যবেক্ষক সংস্থাটি। তিন মাসের মধ্যে এ নির্দেশ মেনে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ না নিলে উভয় প্রতিষ্ঠানকে প্রতিদিন এক লাখ ইউরো করে জরিমানা করা হবে বলে জানিয়েছে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ।

এমন পরিস্থিতিতে ইউরোপের আইন লঙ্ঘনের অভিযোগে একাধিকবার জরিমানার মুখে পড়েছে গুগল। এর আগে ২০২০ সালেও গুগলকে একই কারণে বিশাল অঙ্কের টাকা গচ্চা দিতে হয়েছিল। সেসময় ১০ কোটি ইউরো রেকর্ড পরিমাণ অর্থদন্ডের ভুক্তভোগীও ছিল এই সার্চ জায়ান্ট। এবার একই অভিযোগে গুগলকে ১৫০ মিলিয়ন ইউরো এবং ফেসবুককে ৬০ মিলিয়ন ইউরো জরিমানা করা হয়েছে।