ঢাকা, মঙ্গলবার, ৩০শে নভেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ১৫ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৪শে রবিউস সানি, ১৪৪৩ হিজরি, রাত ৩:৫৩
বাংলা বাংলা English English

মঙ্গলবার, ৩০শে নভেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ১৫ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

করোনাকালে কত স্বাস্থ্যকর্মী মারা গেছে?


বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বলছে, করোনাভাইরাসের কারণে বিশ্বে এ পর্যন্ত ৮০ হাজার থেকে ১ লাখ ৮০ হাজার স্বাস্থ্যকর্মীর মৃত্যু হয়ে থাকতে পারে।

কাতারভিত্তিক আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম আলজাজিরা এ তথ্য জানায়।

ডব্লিউএইচও বলছে, এই মৃত্যুগুলো মর্মান্তিক ক্ষতি।

বৃহস্পতিবার এক বিবৃতিতে সংস্থাটি বলছে, করোনাভাইরাসের কারণে এসব স্বাস্থ্যকর্মীর মৃত্যু হয়েছে ২০২০ সালের জানুয়ারি থেকে চলতি বছরের মে মাসের মধ্যে।

করোনায় আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসার ক্ষেত্রে সবচেয়ে ঝুঁকির মধ্যে থাকেন স্বাস্থ্যকর্মীরা। ফলে তাদের আক্রান্ত হওয়ার শঙ্কা থাকে বেশি। এমন প্রেক্ষাপটে টিকাদান কর্মসূচিতে স্বাস্থ্যকর্মীদের অগ্রাধিকার দেওয়া উচিত বলে মনে করে ডব্লিউএইচও।

ডব্লিউএইচওর প্রধান টেড্রোস আধানম গেব্রিয়াসুস বলেন, বিশ্বে স্বাস্থ্যকর্মী রয়েছেন ১৩ কোটি ৫০ লাখের মতো। তথ্য-উপাত্ত থেকে জানা গেছে, ১১৯ দেশের মধ্যে গড়ে পাঁচজনের মধ্যে দুজন করোনা টিকার পুরোপুরি ডোজ সম্পন্ন করেছেন। অবশ্যই এটি বিস্তর পার্থক্য আঞ্চলিক ও ধনী দেশগুলোর তুলনায়। আফ্রিকায় ১০ জনের মধ্যে একজন স্বাস্থ্যকর্মী পুরোপুরি টিকা নিয়েছেন, যা উন্নত দেশে ৮০ শতাংশ।

ইন্টারন্যাশনাল কাউন্সিল অব নার্সেসের সভাপতি অ্যানেট কেনেডি করোনায় স্বাস্থ্যকর্মীদের প্রাণহানিতে দুঃখ প্রকাশ করেছেন। তিনি বলেন, এসব মৃত্যুর মধ্যে অনেকেরই জীবন যাওয়া অপ্রয়োজনীয় ছিল। কারণ আমরা তাদের অনেককে বাঁচাতে পারতাম।

চীনের উহানে ২০১৯ সালের ডিসেম্বরে প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত হয়। এর পর তা ছড়িয়ে পড়ে বিশ্বজুড়ে। এ পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ২৪ কোটি ৩২ লাখ, মৃত্যু হয়েছে ৪৯ লাখ ৪৫ হাজার মানুষের।