ঢাকা, রবিবার, ১৬ই মে, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ২রা জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ৩রা শাওয়াল, ১৪৪২ হিজরি, সকাল ১১:১২

পুঁজি সংকটে রংপুরের শতরঞ্জি শিল্প

পুঁজি সংকটে বন্ধ হয়ে যেতে বসেছে রংপুরের শতরঞ্জি শিল্প। অর্ধেক পারিশ্রমিকে কারিগররা উৎপাদন অব্যাহত রাখলেও করোনা সংকটে রফতানি কার্যক্রম বন্ধ। পাশাপাশি অভ্যন্তরীণ বাজারে বিক্রয় কেন্দ্রগুলো বন্ধ থাকায় চলতি মূলধনে টান পড়ায় বিপর্যস্ত উদ্যোক্তারা।

করোনাভাইরাসের ভয়াবহ বিস্তারের এই সময়টাতেও থেমে নেই রংপুরের শতরঞ্জি পল্লীর কারখানাগুলো। জেলার অর্ধশতাধিক ছোটবড় কারখানার বেশিরভাগেই শ্রমিকদের শতভাগ উপস্থিতি দেখে বোঝার উপায় নেই কতোবড় বিপর্যয়ের মুখে সবাই। অর্ধেক পারিশ্রমিকেই কাজ করে চলেছেন শ্রমিকেরা।

তারা বলছেন, করোনা কারণে পরিবহন বন্ধ। সুতা আনা যাচ্ছে না, তাই কাজও কম। ইনকাম কম হওয়ায় রমজানে সন্তানসহ নিজেদের খাদ্য যোগাড় করতেও হিমশিম খেতে হচ্ছে তাদের।

শতরঞ্জি শিল্প উদ্যোক্তা মনিরা বেগম জানান, আমরা যে তাদেরকে কাজ দেবো সেটাও দিতে পারছি না; আমাদের সেলস সেন্টার বন্ধ। সুতাটাও নিয়ে আসতে পারছি না। সবমিলিয়ে খারাপ অবস্থার মধ্যে রয়েছি।

শতরঞ্জি শিল্প উদ্যোক্তা রফিকুল ইসলাম দুলাল বলেন, পণ্য বিক্রি করতে না পারায় আর্থিক অনটনে আছি। আমরা গত তিন মাসে এখানকার শ্রমিকদের বেতন দিতে পারি নাই।

অভ্যন্তরীণ বাজার এবং ইউরোপ ও উত্তর আমেরিকাসহ বিশ্বের ৩৫টিরও বেশি দেশে এই বুনন শিল্পের চাহিদা পূরণ করে রংপুরের শতরঞ্জি। হস্তশিল্প ক্যাটাগরিতে দেশের রফতানিখাতের ৬০ ভাগ আসে শতরঞ্জি থেকে।

ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০৩১